মঙ্গল শোভাযাত্রার সঙ্গে ধর্মের সম্পর্ক নেই : প্রধানমন্ত্রী

নিউজ ডেস্ক: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, পহেলা বৈশাখ এবং মঙ্গল শোভাযাত্রা বাঙালি সংস্কৃতির অংশ, এর সঙ্গে ধর্মের কোনো সম্পর্ক নেই। এ নিয়ে যারা বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে তাদের ব্যাপারে সতর্ক থাকার আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।

সেইসঙ্গে পহেলা বৈশাখে ইলিশ না খাওয়ার আহ্বান জানান আওয়ামী লীগ সভাপতি।

আজ বুধবার সকালে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে নরসিংদী জেলা পরিষদের নির্বাচিত চেয়ারম্যান আব্দুল মতিন ভূঁইয়ার শপথ অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এসব কথা বলেন।
বাংলা নববর্ষ উদযাপন সংস্কৃতির অংশ, এই সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য মোগল আমল থেকে পালিত হয়ে আসছে উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, ‘এই একটা দিন যেদিন বাংলাদেশে বসবাসরত সব ধর্মের সব সদস্য এক হয়ে পালন করে। এটা হলো বাংলা নববর্ষ। এর সঙ্গে কোনো ধর্মীয় ব্যাপার নেই। আর মঙ্গল শোভাযাত্রা এটাও কোনো ধর্মীয় ব্যাপার না। আমাদের যে সংস্কৃতি, কৃষ্টি, আচার-আচরণ তারই কিছু প্রতিফলন ঘটে। এটাকে কেউ কেউ হিন্দুয়ানি… যেমন মঙ্গল শব্দ শুনলে এটা হিন্দুয়ানি শব্দ… এটা কিন্তু কোনোদিন গ্রহণযোগ্য না।’

এ সময় প্রধানমন্ত্রী বলেন, ইরানসহ পৃথিবীর অনেক মুসলমান দেশও বর্ষবরণ উদযাপন করে। কিন্তু বাংলাদেশে এ নিয়ে বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে একটি মহল।

সরকারপ্রধান বলেন, পহেলা বৈশাখে যে মঙ্গল শোভাযাত্রা হয়, এটা নিয়ে নানাজনে নানা কথা, নানা কিছু বলার চেষ্টা করছে, কেউ থ্রেট দিচ্ছে ইত্যাদি ইত্যাদি। এটা বিভ্রান্তি সৃষ্টির একটি চেষ্টা। এ ব্যাপারে আমি একটু দেশবাসীকে সজাগ থাকতে বলি, যারা এ ধরনের বিভ্রান্তি ছড়ায়, তাদেরকেও বলব, এ রকমের বিভ্রান্তি যেন তারা না ছড়ায়।

পহেলা বৈশাখের খাদ্য তালিকায় ইলিশকে বাধ্যতামূলক না করতে দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, পহেলা বৈশাখের সঙ্গে ইলিশ মাছ খাওয়ার কিন্তু সম্পর্ক নেই। এরই মধ্যে আমার পাঁকের ঘরে বলে দেওয়া হয়েছে, ইলিশ মাছের কোনো কিছু হবে না।