বকেয়া বেতনের দাবিতে শ্রমিক আন্দোলন, শ্রমিক পুলিশ সংঘর্ষ – নিহত ১

রায়পুরায় জমি নিয়ে বিরোধের জেরে এক ব্যক্তি খুন

লাইভ প্রেস২৪, দিনাজপুর : দিনাজপুরের বিরলে রূপালী জুট মিলে বকেয়া বেতনের দাবিতে আন্দোলনরত শ্রমিকদের সাথে পুলিশের দফায় দফায় সংঘর্ষে আহত শ্রমিকদের মধ্যে সুরত আলী নামে একজন শ্রমিক নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে কমপক্ষে আরো ১০ শ্রমিক।

বুধবার রাত ৮টার দিকে শুরু হওয়া সংঘর্ষের সময় পুলিশ টিয়ারশেল এবং রাবার বুলেট ছুড়লে হতাহতের ওই ঘটনা ঘটে। প্রতিবাদে রাত ১১টা পর্যন্ত মিলগেটে আগুন জ্বালিয়ে অবস্থান নিয়েছে ক্ষুব্ধ শ্রমিককরা।
মিলের মধ্যে অবরুদ্ধ অবস্থায় রয়েছে বিরল থানা পুলিশসহ মিল কর্তৃপক্ষ। পরিস্থিতি সামাল দিতে পুলিশ লাইন থেকে অতিরিক্ত দাঙ্গা পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। শ্রমিক নিহতের ঘটনা নিশ্চিত করেছেন দিনাজপুরের পুলিশ সুপার আনোয়ার হোসেন। ঘটনাস্থলের পরিদর্শন করেছেন তিনি।

স্থানীয়রা জানান, তিন সপ্তাহের বকেয়া বেতনের দাবিতে আজ জুটমিলে আন্দোলনে নামে কর্মরত শ্রমিকরা। মিল গেটে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ করছিল তারা। রাত সাড়ে ৮টার দিকে তারে সরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করে বিরল থানা পুলিশ। এসময় দুপক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া শুরু হলে প্রথমে লাঠিচার্জ এবং পরে টিয়ারশেলের সাথে কয়েক রাউন্ড রাবার বুলেট ছুড়ে পুলিশ। এতে কমপক্ষে ১০জন শ্রমিক রাবার বুলেটে আহত হয়েছে। এদের মধ্যে সুরুত আলী নামে এক শ্রমিক নিহত হয়েছে বলে দাবি করেছেন জুটমিল শ্রমিকরা। সে বিরল উপজেলার হোসনা গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে বলে জানিয়েছেন তারা। বিরল উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রের একজন কর্মচারি জানান, মৃত অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়েছিল ওই শ্রমিককে। তিনি জানান গ্রেপ্তার এড়াতে হাসপাতাল থেকে পালিয়ে গেছে গুলিতে আহত আরো ৩ শ্রমিক।

সালাহ উদ্দিন আহমেদ

 

Share This: