সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে ব্যাংকগুলোকে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নির্দেশ

লাইভ প্রেস২৪,ঢাকা: করোনাভাইরাসের সংক্রামণ রোধে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে নির্দেশনা দিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। কিন্তু অনেক গ্রাহক ব্যাংকে লেনদেনের সময় এ নিয়ম অনুসরণ করছে না। তাই করোনা প্রতিরোধে সঠিক নিয়মকানুন পরিপালন করতে কঠোর সতর্ক বার্তা দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। পাশাপাশি দর্শনার্থী বা সাক্ষাৎ প্রার্থীদের ব্যাংকে আগমন নিরুৎসাহিতের পরামর্শ দেয়া হয়েছে।

বুধবার (৮ এপ্রিল) বাংলাদেশ ব্যাংকের ব্যাংকিং প্রবিধি ও নীতি বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত সার্কুলার জারি করেছে।

সার্কুলারে বলা হয়েছে, ব্যাংকিং কার্যক্রম ব্যতীত দর্শনার্থী বা সাক্ষাৎ প্রার্থীদের ব্যাংকে আগমন নিরুৎসাহিত করতে হবে। ব্যাংকে উপস্থিত সবার মধ্যে যাতে নির্দিষ্ট দূরত্ব (ডব্লিউএইচও এর গাইডলাইন অনুযায়ী) বজায় থাকে সে বিষয়টি নিশ্চিত করতে হবে।

লক্ষ্য করা যাচ্ছে যে, বিভিন্ন ব্যাংকে আগত বিভিন্ন ভাতা গ্রহণকারীসহ গ্রাহক, দর্শনার্থী, সাক্ষাৎপ্রার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারীরা ব্যাংকে আসার পর নির্দিষ্ট দূরত্ব বজায় রাখছেন না। তাই পুনরায় নির্দেশনা দেয়া যাচ্ছে যে, ব্যাংকে আগত বিভিন্ন ভাতা গ্রহণকারীসহ গ্রাহক, দর্শনার্থী, সাক্ষাৎপ্রার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারীরা ব্যাংকে আসার পর যাতে নির্দিষ্ট দূরত্ব বজায় রাখেন সে বিষয়টি নিশ্চিত করতে হবে। এক্ষেত্রে প্রয়োজনে স্থানীয় প্রশাসনের সহায়তা গ্রহণ করা যেতে পারে।

এদিকে এক ব্যাংক কর্মকর্তা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ায় রাজধানী মতিঝিলে অগ্রণী ব্যাংকের প্রিন্সিপাল শাখা লকডাউন করা হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ব্যাংকটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) মোহম্মদ শামসুল উল ইসলাম।

তিনি জানান, ব্যাংকের প্রিন্সিপাল শাখার এক কর্মকর্তার জ্বর ছিল। পরে টেস্ট করার পর রেজাল্ট করোনা পজেটিভ পাওয়া গেছে। তাই শাখাটি লকডাউন করা হয়েছে।

‘যে কর্মকর্তা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন, তিনি ব্যাংকের বৈদেশিক লেনদেনে কাজ করতেন। তার সঙ্গে একই সময় ব্যাংকে ছিলেন ৬২ জন। তাদের সবাইকে হোম কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে। আগামী ১৪ দিন ব্যাংক লকডাউন থাকবে। আর প্রিন্সিপাল শাখার কার্যক্রম মতিঝিল আমিন কোর্ট শাখায় স্থানান্তর করা হয়েছে’ বলেও জানান তিনি।

লাইভ প্রেস২৪/এমআর