হোম অফিস : আপনার জন্য কিছু প্রয়োজনীয় নির্দেশনা | Live Press24

হোম অফিস : আপনার জন্য কিছু প্রয়োজনীয় নির্দেশনা

Published on: 3:06 pmJuly 12, 2020

লাইভ প্রেস২৪ ডেস্ক : হোম অফিস বা ‘ওয়ার্ক ফ্রম হোম’ কথাটার সাথে এখন সবাই পরিচিত। করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে বেশিরভাগ মানুষ এখন বাড়ি থেকে কাজ করছে। বাইরের দেশে এটা খুবই প্রচলিত হলেও আমাদের দেশে নতুন। তাই আমরা অনেকেই এর আসল ব্যবহারটা সঠিকভাবে মেনে চলছি না। আমরা ভেবে নিচ্ছি বাড়িতে বসে কাজ করা মানে দিন রাত যেকোন সময় কাজ করতে পারি। এতে আমাদের অফিস লাইফ ও ব্যক্তিগত লাইফে খারাপ প্রভাব পরতে পারে।

করোনাভাইরাসের এই সময়টিতে সব কিছুর পাশাপাশি আমাদের শরীরের দিকেও খেয়াল রাখতে হবে। আর সব কিছুকে ঠিক রেখে আমাদের জীবন সুষ্ঠভাবে পরিচালিত করতেই আপনাদের সাথে কিছু টিপস শেয়ার করা।

১. সময় ধরে কাজ করা বা টাইম মেইনটেইন : একটি সময়সূচী সেট করুন। তাড়াতাড়ি ঘুমাতে যাবেন এবং সকাল সকাল ঘুম থেকে উঠবেন । এতে আপনার কাছে দিনটাকে অনেক বড় মনে হবে । অফিসের সময় , ব্রেকের সময়, মিটিংয়ের সময় সব কিছু আগে থেকে ঠিক করে রাখুন। অফিসের কাজের পরে অবশ্যই ব্যক্তিগত সময়টাকেও আপনার রুটিনে নিয়ে আসুন।

২. মর্নিং রুটিন তৈরি করুন : বাসায় অফিসের কাজের জন্য একটি নিদিষ্ট স্থান (পড়ার টেবিল) নির্ধারণ করুন এবং আপনি সেখানে বসে একটি নির্দিষ্ট সময়ে কাজ শুরু করার সিদ্ধান্ত নিন এবং নির্দিষ্ট সময়ই কাজ শেষ করুন। এতে আপনার কাজের গতি ঠিক থাকবে এবং পরের দিনের কাজের জন্য আপনি নিজেকে রিচার্জেবল করে নিতে পারবেন। যেমনটি আমরা অফিসে গিয়ে কাজ করার ক্ষেত্রে এ বিষয়গুলো মেনে থাকি। এ সময়টিতে একটি ঘড়ির থেকে বেশি জরুরি একটি রুটিন । ঘরে বসে কাজ করার একটা বড় সুবিধা অফিসের যাতায়াত সময়টুকু বেচে যায়। ওই সময়টুকু দিনের শুরুতে কিছু মিটিং সেড়ে ফেলতে পারেন। এতে আপনি আজ কী নিয়ে কাজ করবেন তা আপনার বস/সহকর্মীদের সাথে শেয়ার করা হয়ে যাবে ।

৩. পরিবারের সদস্যদের সাথে আপনার রুটিন শেয়ার করুন : আপনার বাড়ির অন্যান্য ব্যক্তিদের সাথে আপনার রুটিনটা শেয়ার করুন। তারা যেন অফিস টাইমে আপনার সাথে পারিবারিক কোন কাজে সাহায্য আশা না করেন। তাদের সাহায্য ছাড়া আপনি অফিসের পরিবেশ কখনোই সৃষ্টি করতে পারবেন না। আপনার যদি বাসায় বাচ্চা থাকে, তাকেও বোঝাতে হবে তারা অফিসের সময়ে কী করতে পারবে আর কী করতে পারবে না।

৪. বিরতির সময় : আগেও যেমন অফিসে একটা নির্দিষ্ট লাঞ্চ ব্রেক, টি ব্রেক থাকত, ঠিক সেই সময়টি ধরে আপনি বাসায় লাঞ্চ, নামাজ, টি ব্রেক গুলো নিয়ে নিবেন। এতে আপনার কাজের মাঝে কিছু বিরতিও আসবে সাথে আপনার কাজটি আরো স্বতঃস্ফূর্তভাবে করতে সাহায্য করবে।

৫. মিটিং গুলোতে ঠিক সময় উপস্থিত থাকুন: ওয়ার্ক ফ্রম হোম এর একটা অপরিহার্য জিনিস হচ্ছে অডিও বা ভিডিও মিটিং । মিটিংগুলোতে অবশ্যই সময়ের ৫ মিনিট আগে উপস্থিত থাকুন। আপনার সাউন্ড , হেডফোনে ,ইন্টারনেট সব কিছু ঠিক আছে কিনা আগে থেকে দেখে নিন। মিটিং চলাকালীন আপনার ভয়েজ মিউট রাখুন। মিটিং চলাকালীন অবশ্যই চেষ্টা করবেন আপনার উপস্থিতির বিষয়ে সবাইকে অবগত করতে। সভার শেষে ‘ধন্যবাদ/ বাই’ বললে আপনার উপস্থিতি শেষ পর্যন্ত ছিল সেটা বোঝাতে সাহায্য করবে । আর আপনার মিটিংটি ভিডিও কলে হলে যতটুকু সম্ভব একটা সুসজ্জিত কোণায় বসে মিটিংটি করতে পারেন।

৬. অসুস্থতায় ছুটি কাটান : যখন আপনি ভাল বোধ করবেন না, সেই সময়টিতে আপনি ছুটি নিন। মনে রাখবেন আপনার শারীরিক ও মানষিক কার্যক্ষমতা বৃদ্ধিতে বিশ্রাম নেওয়া এবং সুস্থ থাকাটা অত্যন্ত জরুরী। সুস্থবোধ না করলে আপনি কোন কাজই সঠিক ভাবে সম্পন্ন করতে পারবেন না।

৭. ছুটির দিনগুলো ছুটিতেই কাটান: ছুটির দিনগুলোতে ঠিক আগের মতোই পরিবারকে, নিজেকে সময় দিন । এতে সপ্তাহটা শুরু হবে একদম অফিসের পরিবেশে। কাজ আর পরিবার দু’টোকে আলাদাই রাখুন । আপনি যখন পরিবারকে ছুটির দিনগুলো সম্পূর্ণভাবে দিবেন তারাও আপনাকে অফিসের সময়ে আপনার সময় চাইবে না।

৮. আপনার দিনকে একটি রুটিন দিয়ে শেষ করুন : আপনার দিনকে যেমন একটি রুটিন দিয়ে শুরু করা উচিত ঠিক তেমনই একটি রুটিনের মাধ্যমেই শেষ করা উচিৎ । যেহেতু অফিস শেষে বাড়িতে ফিরে যাওয়ার তাড়া নেই, তাই সেই সময়টুকুতে কাজের আপডেট নিয়ে একটা মিটিং রাখতে পারেন । এতে আপনার বস/সহকর্মীদের সাথে কাজ নিয়ে কোন বৈসাদৃশ্য থাকবে না। পরের দিনের কাজ শুরুটা সহজ হবে। অফিস থেকে ফিরে যেমনটি পরিবার/নিজেকে সময় দিতেন, ঠিক তেমনি এখনো সেই রুটিনটিই ফলো করুন।

লাইভ প্রেস২৪/টিএস

আরও পড়ুন

পায়ুপথের সমস্যায় “জাদুকরী সমাধান”
করোনার ভিন্ন লক্ষণ; চিকিৎসকদের সতর্কতা!
যে ১০ খাবার মাথাব্যথা কমায়
জেনে নিন, খুশকি দূর করার ৫টি উপায়
যে কারণে এই মাস্কের দাম ১৩ কোটি টাকা
আসুন জেনে নেই, ভালো ঘুম যেভাবে যেসব রোগকে ‘দূরে’ রাখে
পেয়ারা পাতা যেভাবে চুল পড়া রোধ করে
বেশি ভাত খাওয়া হৃদরোগের আশঙ্কা, বলছে গবেষণা
জেনে নিন, ত্বকের তৈলাক্তভাব কমানোর উপায়
জেনে নিন, লিপস্টিকের বহুমাত্রিক ব্যবহার